চাঁদা তুলতে গিয়ে ডাম্পারের ধাক্কায় মৃত্যু হল দুই যুবকের। মৃত দুই যুবকের নাম পাপ্পু যাদব (২৮) ও সঞ্জু বৈরাগ্য। ঘটনাটি ঘটেছে পানাগড়-মোরগ্রাম রাজ্য সড়কের ২ নং কলোনির কাছে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় পাপ্পু যাদবের। গুরুতর আহত সঞ্জু বৈরাগ্যকে উদ্ধার করে দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেখানে তিনি মারা যান। সোমবার সকালে মর্মান্তিক এই পথ দুর্ঘটনার পর স্থানীয়রা ক্ষোভে ফেটে পড়েন। ঘাতক ডাম্পারটিকে আটক করেছে পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, এলাকায় পুজো উপলক্ষে এদিন সকালে পানাগড়-মোরগ্রাম রাজ্য সড়কের উপর কাঁকসার ২ নম্বর কলোনি এলাকায় শ্মশানকালী মন্দিরের সামনে চাঁদা তুলছিলেন কয়েকজন যুবক। বীরভূমের দিক থেকে আগত একটি ডাম্পারকে চাঁদার জন্য দাঁড় করান ওই যুবকরা। ডাম্পারটি দাঁড়িয়ে গেলে সেটির সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন পাপ্পু ও সঞ্জু। কিন্তু ডাম্পারটি চাঁদা না দিয়ে হঠাৎ গতি বাড়িয়ে পাপ্পু ও সঞ্জুকে ধাক্কা দিয়ে পালাতে গেলে ডাম্পারের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয় পাপ্পুর। গুরুতর জখম সঞ্জুকে উদ্ধার করে দুর্গাপুর মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে সেখানে তাঁর মৃত্যু হয়। এই মর্মান্তিক দৃশ্য দেখে উপস্থিত মানুষজন ক্ষোভে ফেটে পড়েন। কাঁকসা থানার পুলিশ গিয়ে অবস্থা সামাল দেয় এবং মৃতদেহটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠায়। এই ঘটনায় বেশ কিছুক্ষণ পানাগড়-মোরগ্রাম রাজ্য সড়ক অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে। পুলিশ তৎপরতার সঙ্গে অবস্থা সামাল দিয়ে পানাগড়-মোরগ্রাম রাস্তায় ফের যান চলাচল স্বাভাবিক করে।


Like Us On Facebook