বর্ধমান হাসপাতাল চত্ত্বরে হাতেনাতে ধরা পড়ল এক পকেটমার। এই ঘটনায় বুধবার সকালে চাঞ্চল্য ছড়ায় বর্ধমান হাসপাতালে। জানা গেছে, ধৃত ওই পকেটমারের নাম শরিফ সেখ। বাড়ি বর্ধমানের বিসি রোডে। অভিযোগ, শরিফ বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আউটডোর বিভাগে এক ব্যক্তির পকেট থেকে টাকা বের করতে গিয়ে হাতেনাতে ধরা পড়েন। বর্ধমান হাসপাতালের পুলিশ ক্যাম্পের পুলিশ কর্মীরা তাঁকে পাকড়াও করে বর্ধমান থানায় পাঠিয়ে দেয়।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, বুধবার সকালে আউটডোর বিভাগে ডাক্তার দেখাতে আসেন বর্ধমানের গাংপুর স্বস্তিপল্লী এলাকার বাসিন্দা রণজিৎ মালাকার। সঙ্গে ছিলেন তাঁর স্ত্রী উর্মীলা মালাকার। রণজিৎবাবুর অভিযোগ, আউটডোরের সার্জারি বিভাগে লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার সময় ওই ব্যক্তি তাঁর পিছন পকেটে হাত ভরে টাকা বের করার চেষ্টা করে। সঙ্গে সঙ্গে পিছন ফিরেই তাঁকে ধরে ফেলেন তিনি। এরপর তাঁকে হাসপাতাল পুলিশ ক্যাম্পে নিয়ে যাওয়া হয়। রণজিৎবাবুর লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ তাঁকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

বর্ধমান ডট কম-এর খবর নিয়মিত আপনার ফেসবুকে দেখতে চান?

Like Us On Facebook