পেটিএমের মাধ্যমে অনলাইনে বিদ্যুৎ বিলের টাকা মেটানোর সূত্র ধরে মুম্বাই থেকে এটিএম জালিয়াতি চক্রের আরও দুই পান্ডাকে গ্রেফতার করল পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশের সাইবার সেল। এর আগে জালিয়াতি চক্রের আরও তিন পান্ডাকে ঝাড়খণ্ডের জামতারা থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে,গত ১১ আগস্ট তারিখে ভাতাড়ের কুবাজপুর এসবিআই অ্যাকাউন্ট থেকে ব্যাঙ্ক ম্যানেজার পরিচয় দিয়ে কার্ডের তথ্য জেনে কালিশঙ্কর ও আসুতোষ মুখার্জী নামে দুই ব্যক্তির মোট ১ লক্ষ ৫২ হাজার টাকা তুলে নেওয়া হয়। পরে ভাতার থানায় তাঁদের করা অভিযোগের পরিপেক্ষিতে তদন্তে নামে পূর্ব বর্ধমান জেলা পুলিশের সাইবার সেল।

প্রথমে পুলিশ ৩০ হাজার টাকা ফিরিয়ে আনতে সক্ষম হয়। এরপর বাকি ১ লক্ষ ১২ হাজার টাকার তদন্তে নেমে সাইবার সেল ঝাড়খণ্ডের জামতারা থেকে প্রথমে সুশান্ত সোরেন ও করণ মুর্মূ সহ তিনজনকে গ্রেফতার করে। তাদের জেরা করে ও করণ মুর্মূর ওয়ালেট অ্যাকাউন্ট খতিয়ে দেখে পুলিশ জানতে পরে মহারাষ্ট্র বিদ্যুৎ বন্টন দফতরের অধীনে একাধিক গ্রাহকের টাকা এই ওয়ালেট থেকে ব্যবহার করে মেটানো হয়েছে।এরপরেই বিদ্যুৎ দফতরের কর্মী পরিচয় দিয়ে সাইবার সেলের অফিসারেরা তদন্তে নেমে সংশ্লিষ্ট একাধিক গ্রাহককে জেরা করে উঠে আসে বিক্রম সাভির্সেস নামে মহারাষ্ট্রের তুলিঞ্জ থানার নালোসাপাড়ার এক সংস্থার কথা। সেখানে পৌছে সংস্থার কর্ণধার বিক্রম রামখিলাবন শাহকে গ্রেফতার করা হয়। তাঁকে জেরা করে ও তাঁর ওয়ালেট অ্যাকাউন্টের সূত্র ধরে পুলিশ বিষ্ণু কুমার পটওয়ারী নামে আরও একজনকে গ্রেফতার করে। জানা গেছে, মোটা টাকা কমিশনের ভিত্তিতে বিভিন্ন ওয়ালেটে এই ধরনের হাতিয়ে নেওয়া টাকা সরবরাহ করত বিষ্ণু। ধৃতদের বৃহস্পতিবার বর্ধমান আদালতে তোলা হয়। জালিয়াতিতে আরও কেউ যুক্ত আছে কিনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ।

Like Us On Facebook